স্বামী-স্ত্রীর উচ্চতার ব্যবধানে বিশ্ব রেকর্ড

ব্রিটেনের ওয়েলসের একটি দম্পতি নিজেদের সম্পর্ককে বিশেষ বলেই মনে করে আসছেন। আবার তাদের এই সম্পর্ক একদিক থেকে রেকর্ডও ভেঙে ফেলেছে। বলা হচ্ছে ৩৩ বছর বয়সী জেমস লাস্টেড ও তার স্ত্রী ২৭ বছর বয়সী ক্লোইর কথা। জেমস পেশায় অভিনয়শিল্পী ও উপস্থাপক এবং ক্লোই শিক্ষক।

তারা ডেবিংশায়ারের রাইলে বসবাস করেন। স্বামী-স্ত্রীর উচ্চতার ব্যবধানের হিসাবে তারা গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ডস নিশ্চিত করেছেন। ২ জুন গিনেস ওয়ার্ল্ড বুকে তাদের নাম ওঠে। তাদের মধ্যে উচ্চতার ব্যবধান দুই ফুট। অর্থাৎ দুজনের মধ্যে উচ্চতার দিক থেকে এতো বেশি ব্যবধানের আর কোনো স্বামী-স্ত্রী নেই।

২০১৬ সালে ভালোবেসে বিয়ে করেন তারা। উচ্চতার বিশাল ফারাক থাকলেও ভালোবাসা তাদের জন্য কোনো প্রতিবন্ধকতা নিয়ে আসেনি। জেমসের উচ্চতা ৩ ফুট ৭ ইঞ্চি, অন্যদিকে তার স্ত্রী ক্লোই ৫ ফুট ৫ দশমিক ৪ ইঞ্চি। ডিয়াস্ট্রোফিক ডিসপ্লাসিয়া নামের বামনরোগে আক্রান্ত জেমস।

জিনগত এ রোগে হাড় এবং তরুণাস্থির উন্নয়ন বা’ধা’গ্র’স্ত করে। এতে তিনি কখনো বিয়ে করতে পারবেন কিনা; তা নিয়ে শ’ঙ্কা’য় ছিলেন বলে স্বীকার করেন এই ব্রিটিশ নাগরিক। জেমস বলেন, ৩ ফুট ৭ ইঞ্চি উচ্চতা কখনো জটিল সমস্যা। কিন্তু অন্যরা যা পারে, আমিও তা পারি। কিন্তু তা ভিন্ন উপায়ে।

নিজের উচ্চতা কম হওয়ায় কখনো বিয়ে করতে পারবেন, তা ভাবেননি জেমস। তিনি জানান, সবার মতোই আমি হতে চেয়েছিলাম। ছোট্ট শরীর নিয়ে বিশালভাবে বেঁচে থাকতে চেয়েছিলাম। ২০১২ সালে জেমস তার নিজ শহরে অলিম্পিক মশাল বহন করেন।

এরপর তার কিছু বন্ধু স্থানীয় একটি পানশালায় ক্লোইর সঙ্গে তাকে পরিচয় করিয়ে দেন। নিজের উচ্চতা বেশি হওয়ায় অধিক উচ্চতার মানুষই পছন্দ করতেন ক্লোই। কিন্তু জেমসের সঙ্গে পরিচয় হওয়ার পর তিনি তার প্রেমে পড়েন।

এই শিক্ষিকা বলেন, সত্যি বলতে কি, মানুষ কেমন প্রতিক্রিয়া দেখাবে তা নিয়ে ভয় ছিল। তবে আমি মনে করি, প্রত্যেকের জন্যই আলাদা কিছু অপেক্ষা করে। আপনি যা ভাবেন, তার সঙ্গে না–ও মিলতে পারে। ক্লোই আরও বলেন, সব বন্ধুদের সঙ্গে একটি বড় বিয়ের অনুষ্ঠান চেয়েছিলাম।

জেমসও তেমনটা চেয়েছিল। আমার বোন যে গির্জায় বিয়ে করেন, সেখানেই আমাদের বিয়ে হয়েছে। ঐতিহ্য অনুসারে বিপুল লোকজন বিয়েতে অংশ নিয়েছিলেন।
২০১৩ সালের শেষ নাগাদ তারা আনুষ্ঠানিকভাবে জুটি হিসেবে আত্মপ্রকাশ করেন।

এর সাত মাস পর তারা প্রথমবারের মতো নর্থ ওয়েলেসের একটি লেকে ভ্রমণ করেন। সেখানেই জেমস ক্লোকে হাঁটু গেড়ে বিয়ের প্রস্তাব দেন। ক্লোই খুশিমনেই তার প্রস্তাবে রাজি হয়ে যান। অলিভিয়া নামে তাদের দুবছর বয়সী একটি কন্যা সন্তান রয়েছে।

Sharing is caring!

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*