সৌদি বাদশার ভাতিজার ফাঁ’সির আদেশ!

সৌদি আরবের শীর্ষস্থানীয় সেনা ক’মান্ডার জেনারেল ফাহাদ বিন তুর্কি আব্দুল আ’জিজের বি’রুদ্ধে মৃ’ত্যু’দ’ণ্ডা’দেশ জারি করা হয়েছে। তিনি বাদশা সালমান বিন আবদুল আজিজের ভা’তিজা। ই’য়ে’মেনে চলমান আ’গ্রা’সনে নেতৃত্বদানকারী জেনারেলদের অন্যতম। মৃ’ত্যু’দণ্ড’প্রাপ্ত এই জেনারেলের স্বজনদের বরাত দিয়ে রবিবার পার্সিয়ান গালফ স্টাডিজ সেন্টার জানিয়েছে,

সৌদি আরবের বাদশা সালমান, যুবরাজ মুহাম্মাদ বিন সালমান ও প্রতিরক্ষামন্ত্রীকে ক্ষমতাচ্যুত করার ষ’ড়য’ন্ত্রের দায়ে তার বি’চার করা হয়েছে এবং এই সিনিয়র যুবরাজের বি’রুদ্ধে মৃ’ত্যু’দ’ণ্ডের আদেশ দেওয়া হয়েছে। গত সেপ্টেম্বরে জেনারেল ফাহাদ বিন তুর্কি আব্দুল আজিজকে তার ছেলেসহ গ্রে’ফতার করা হয়। তিনি ১৯৮৩ সালে সৌদি সেনাবাহিনীতে যোগ দেন।

এরপর মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও ব্রিটেনে বিশেষ সামরিক প্রশিক্ষণ গ্রহণ করেন এবং ব’হিষ্কার ও গ্রে’ফতা’রের আগে গত বছর জেনারেল পদে উন্নীত হন। তার ছেলেদের বি’রুদ্ধে ব্যাপক দুর্নী’তির অভিযোগ ছিল। রাজধানী রিয়াদের অন্তত ১০০টি আবাসন প্রকল্প পরিচালনা করছিল তারা। ব্যাপক দু’র্নী’তির কারণে ২০১৪ সালে তার ছেলেদের গ্রে’ফতা’রের খবর প্রকাশিত হয়েছিল। সূত্র: পার্সটুডে ও মিডল ইস্ট মনিটর।

Sharing is caring!

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*