শেষ ষোলোয় বিদায় নেওয়া রোনালদোয় জিতবেন গোল্ডেন বুট!

শেষ পর্যায়ে এসে পৌঁছেছে ইউরো কাপের লড়াই। রবিবার রাতে ইতালি ও ইংল্যান্ডের মধ্যকার ফাইনালের মধ্য দিয়ে পর্দা নামবে এবারের আসরের। তবে টুর্নামেন্টের সর্বোচ্চ গোলদাতার দৌড়ে এ দুই দলের কেউই সবার ওপরে নয়।

ইউরোর আসর থেকে অনেক আগেই বিদায় নেওয়া পর্তুগালের তারকা ফুটবলার ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোর সামনে রয়েছে সর্বোচ্চ গোলদাতার পুরস্কার গোল্ডেন বুট জেতার সুযোগ। কেননা ফাইনালের আগ পর্যন্ত যে রোনালদোই আছেন গোলদাতাদের তালিকায় সবার ওপরে।

দ্বিতীয় রাউন্ডের লড়াইয়ে বেলজিয়ামের কাছে হেরে টুর্নামেন্টের দ্বিতীয় রাউন্ড থেকে বাদ পড়ে পর্তুগাল। তবে প্রথম রাউন্ডের তিন ম্যাচেই ৫টি গোল করে এখনও সবার উপরেই আছেন রোনালদো। সেমিফাইনাল থেকে বাদ পড়া ডেনমার্কের ফরোয়ার্ড প্যাট্রিক শিকেরও রয়েছে সমান ৫টি গোল।

কিন্তু ইউরো কাপের নিয়ম অনুযায়ী গোলদাতার তালিকায় শীর্ষে রয়েছেন রোনালদো। কারণ ৫ গোলের পাশাপাশি ১টি অ্যাসিস্টও রয়েছে তার। অন্যদিকে ৫ গোল করলেও কোনো অ্যাসিস্ট করতে পারেননি শিক। ফলে অ্যাসিস্টের কারণে এগিয়ে রোনালদো।

অবশ্য রবিবারের ফাইনালে সুযোগ থাকছে ইংল্যান্ডের দুই খেলোয়াড় হ্যারি কেন ও রহিম স্টারলিংয়ের সামনেও। চলতি আসরে এখনও পর্যন্ত ৪ গোল করেছেন হ্যারি কেন। স্টারলিংয়ের গোল তিনটি। কেনের কোনো অ্যাসিস্ট নেই। তবে একটি অ্যাসিস্ট করেছেন স্টারলিং।

ফলে ফাইনাল ম্যাচে যদি জোড়া গোল করতে পারেন হ্যারি কেন, তাহলে ৬ গোল নিয়ে রোনালদোকে ছাড়িয়ে যেতে পারবেন তিনি। এছাড়া এক গোলের সঙ্গে জোড়া এসিস্ট করলেও রোনালদোকে ছাড়িয়ে যাবেন কেন। স্টারলিংয়ের সামনে সমীকরণটা খানিক কঠিন।

তাকে করতে হবে অন্তত তিন গোল অথবা দুই গোল ও এক অ্যাসিস্ট। ইউরো কাপের নিয়ম অনুযায়ী, দুই বা ততোধিক খেলোয়াড়ের মধ্যে গোলসংখ্যা সমান হলে দেখা হবে এসিস্ট সংখ্যা। যদি গোল-অ্যাসিস্ট সমান হয়, তাহলে বিবেচনায় আসবে কোন খেলোয়াড় কম সময় খেলেছেন।

যেহেতু মাত্র ৩৬০ মিনিট খেলে ৫ গোল ও ১ অ্যাসিস্ট করেছেন রোনালদো, আসর শেষে দুই বা ততোধিক খেলোয়াড়ের মধ্যে গোল-অ্যাসিস্ট সমান হলে গোল্ডেন বুট জিতবেন রোনালদোই। তাই গোল্ডেন বুট পেতে হলে ফাইনাল ম্যাচে বিশেষ কিছুই করতে হবে কেন-স্টারলিংদের।

Sharing is caring!

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*