মৃত্যু ও সংক্রমণে অতীতের সব রেকর্ড ভাঙল চট্টগ্রাম!

দেশে ভ’য়ংক’র রূপ নিয়েছে করো’না। ঈদের পরে ফের লাফিয়ে বাড়ছে মৃ’ত্যু ও সং’ক্রম’ণ। চট্টগ্রামের আবারও করোনা আ’ক্রান্তে’র নতুন নতুন রেকড সৃষ্টি হয়েছে। বেড়েছে আ’ক্রান্ত ও মৃ’ত্যু। চট্টগ্রামে করো’নায় আরো ১৮ জনের মৃ’ত্যু হয়েছে। একই সঙ্গে শ’নাক্ত হয়েছে এক হাজার ৩১০ জনের। যা একদিনের ব্যবধানে সর্বোচ্চ মৃ’ত্যু ও শনা’ক্ত বলে বিবেচনা করা হচ্ছে।

সোমবার (২৬ জুলাই ) রাতে এ তথ্য নিশ্চিত করেন চট্টগ্রামের সিভিল সার্জন ডা. শেখ ফজলে রাব্বি। তিনি জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়, বিআইটিআইডি, চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ, চট্টগ্রাম ভেটেরিনারি ও এনিম্যাল সাইন্সেস বিশ্ববিদ্যালয়, কক্সবাজার মেডিকেল কলেজ,

এন্টিজেন টেস্ট, ইমপেরিয়াল হাসপাতাল, শেভরন ল্যাব, চট্টগ্রাম মা ও শিশু হাসপাতাল এবং মেডিকেল সেন্টার হাসপাতালে তিন হাজার ৩৮৯ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। এরমধ্যে এক হাজার ৩১০ জনের শরীরে ক’রোনাভাই’রাসের অ’স্তিত্ব পাওয়া গেছে।

আ’ক্রা’ন্তদের মধ্যে নগরীর ৮৩৩ জন, আনোয়ারার ৬৭ জন, বোয়ালখালীর ৬৫ জন, হাটহাজারীর ৫৯ জন, পটিয়ার ৫৭ জন, রাউজানের ৫৪ জন, রাঙ্গুনিয়ার ৪৪ জন, ফটিকছড়ির ৩০ জন, সন্দ্বীপের ২৩ জন, সীতাকুণ্ডের ২৩ জন, বাঁশখালীর ২১ জন, সাতকানিয়ার ১৮ জন, মিরসরাইয়ের ১২ জন, লোহাগাড়ার দুইজন ও চন্দনাইশের দুইজন রয়েছেন।

সিভিল সার্জন কার্যালয়ের তথ্যমতে, নগরীতে ৫৮ হাজার ৩২৩ জন ও উপজেলা পর্যায়ে ১৯ হাজার ১৯৮ জন নিয়ে চট্টগ্রাম জেলায় এ পর্যন্ত করো’নায় আ’ক্রা’ন্ত হয়েছেন ৭৭ হাজার ৫২১ জন। এছাড়া মা’রা গেছেন ৯১৫ জন। এরমধ্যে নগরীর ৫৫৪ জন ও উপজেলার ৩৬১ জন রয়েছেন।

উল্লেখ্য, গত বছর ৮ মার্চ দেশে প্রথম করো’না রোগী শনা’ক্ত হয়। এর ১০ দিন পর প্রথম মৃ’ত্যু নিশ্চিত করে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। দেশে ডেল্টা ভ্যারিয়েন্ট ছড়িয়ে পড়ার পর থেকে বাড়তে থাকে মৃত্যু ও শনাক্ত। এ মাসে প্রায়সব জেলা গুলোতে প্রতিদিনই মৃ’ত্যু ও সং’ক্র’মণ নতুন রেকর্ড গড়াচ্ছে।

Sharing is caring!

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*