মারা গেলেন এক ম্যাচে সেঞ্চুরি ও ১০ উইকেট নেওয়া প্রথম ক্রিকেটার

“মৃত্যু” এক নির্মম, কঠিন বাস্তবতার নাম। মৃত্যু এমন এক মেহমান, যে দরজায় এসে দাড়িয়ে গেলে তাকে ফিরিয়ে দেওয়ার ক্ষমতা দুনিয়ার কারো নেই! মৃত্যু যেকোন বয়সের, যেকোন মানুষের সামনে, যেকোন সময়ে উপস্থিত হতে পারে! মানুষ চলে যায়, রেখে যায় তাঁর কীর্তি। পরপর দুই দিনে দেশের দুই অন্যতম সেরা ক্রিকেটারকে হারাল অস্ট্রেলিয়া।

গত শুক্রবার না ফেরার দেশে পাড়ি জমান অস্ট্রেলিয়ার অন্যতম সেরা স্পিনার অ্যাশলে ম্যালেট। আর গতকাল শনিবার চলে গেলেন অ্যালান ডেভিডসন। তাঁর বয়স হয়েছিল ৯২ বছর। ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া এক বিবৃতির মাধ্যমে এই খবর নিশ্চিত করেছে।অ্যালান ছিলেন প্রথম ক্রিকেটার হিসেবে যিনি একই টেস্টে সেঞ্চুরি এবং ১০ উইকেট নিয়েছিলেন।

১৯৫৩ সালের অ্যাশেজ সিরিজে অভিষেক হয় অ্যালানের। ১৯৬০ সালে প্রথম ক্রিকেটার হিসেবে তিনি এই কৃতিত্ব অর্জন করেন। অস্ট্রেলিয়ার হয়ে ৪৪টি টেস্ট খেলেছেন তিনি। ব্যাট হাতে করেছেন ১৩২৮ রান। বাঁ হাতি সুইং বোলার ছিলেন। নিয়েছেন ১৮৬টি উইকেট। ২০১১ সালে আইসিসি তাঁকে হল অব ফেমে অন্তর্ভূক্ত করে।

ওই সময় উইন্ডিজ দল ছিল ভয়ঙ্কর। সেই দলের বিপক্ষে অ্যালান সেঞ্চুরি আর দশ উইকেটের রেকর্ড গড়েন। ব্রিসবেনের সেই ম্যাচে ভাঙা আঙুল নিয়ে খেলেছিলেন তিনি। শেষ দিনে ৮০ রান করে কোনোমতে ম্যাচ বাঁচান। অবসরের পর ১৯৭৯ থেকে ১৯৮৪ সাল পর্যন্ত অস্ট্রেলিয়ার জাতীয় নির্বাচক হিসেবে কাজ করেছেন অ্যালান। তাঁকে সম্মান জানাতে শনিবার সিডনি ক্রিকেট গ্রাউন্ডের মেম্বার্স প্যাভিলিয়নের পতাকা অর্ধনমিত রাখা হয়।

Sharing is caring!

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*