ভারতের ‘ইজ্জত লুণ্ঠন’ হতে পারে আফগানদের কাছে, শঙ্কা শোয়েব আখতারের

বিশ্বকাপে সুপার টুয়েলভের প্রথম দুই ম্যাচের মুদ্রার উল্টো পিঠ দেখতে হয়েছে ভারতীয় ক্রিকেট দলকে। পাকিস্তান ও নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে এক কথায় উড়ে গেছে বিরাট কোহলির দল। এরপরই তাদের সেমিফাইনালে যাওয়ার স্বপ্ন ক্ষীণ হয়ে গেছে। ভারতীয় দলের এমন অবস্থার জন্য মিডিয়া, সাবেক ক্রিকেটার এবং দর্শকদের বাড়াবাড়িকেই দায়ী করছেন পাকিস্তানের সাবেক গতিতারকা শোয়েব আখতার।

পাকিস্তানের বিপক্ষে ১০ উইকেটে হারের লজ্জার পর দ্বিতীয় ম্যাচে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ৮ উইকেটে হার। সেমিফাইনালে ওঠাই কোহলিদের জন্য এখন ভাগ্যের ব্যাপার। তাদের আরো তিনটি ম্যাচ বাকি। সেসব ম্যাচে এই ভারতের অবস্থা আরো খারাপ হবে বলে মনে করছেন ‘রাওয়ালপিন্ডি এক্সপ্রেস’ খ্যাত শোয়েব।

চলতি আসরে ভারতের পারফরম্যান্স একেবারেই নড়বড়ে এবং দৃষ্টিকটু। ইউটিউবে শোয়েব বলেছেন, ‘এমন অবস্থা হওয়ারই ছিল, আর সেটাই হয়েছে। খুব বাজে খেলেছে তারা। ভারত অনেক বাজে খেলেছে। মনে হচ্ছিল, ভারত ম্যাচ খেলতেই আসেনি, শুধু নিউজিল্যান্ডই খেলতে এসেছে। ওদের মিডিয়া ওদের ওপর যে চাপ দিচ্ছিল, যেসব কথা বলা হচ্ছিল, আমি নিশ্চিত ছিলাম, ওরা ফাঁসবেই। আর সেটাই হয়েছে। ভারতের বোলিং বিভাগ যথেষ্ট দুর্বল ছিল।

শোয়েব আরো বলেন, ‘ভারতের কপাল খারাপ, তারা একবারও টস জেতেনি। টস না জিতে ওদের আরো হতাশা বেড়েছে। আচ্ছা বুঝলাম, টসে হেরেছে, বলে সুইং হচ্ছিল। তাই বলে এভাবে খেলতে হবে? একজন মারতে যাচ্ছে, আরেকজনও মারতে যাচ্ছে, তৃতীয়জনও মারতে যাচ্ছে। সহজভাবে খেলো না! বুঝলাম না ওদের মনের অবস্থা কী ছিল। সব বলে মারতে চাইছিল। একটু নিউজিল্যান্ডের ওপর চাপ সৃষ্টি করো, আস্তে আস্তে খেলো কিছুক্ষণ! ওরা যেন ভেবেই নেমেছিল নিউজিল্যান্ডকে মেরে মেরে তক্তা বানিয়ে ফেলতে হবে!’

আফগান ম্যাচ নিয়ে কোহলিদের সতর্ক করে শোয়েব বলেন, ‘ভারতের অবস্থা আরো খারাপ হবে, যদি তারা আফগানদের বিপক্ষে হেরে যায়। ভারত যদি নিজেদের ইজ্জত বাঁচাতে চায়, তাহলে আফগানিস্তানের বিপক্ষে তাদের জিততেই হবে। আবুধাবিতে ভারতকে প্রমাণ করতে হবে যে আফগানিস্তানের বিপক্ষে তারা জিততে পারে।

আমার যা মনে হচ্ছে, আফগানিস্তান যদি টসে জিতে প্রথমে বল করে, তাহলে ভারতের অবস্থা আরো বেশি খারাপ হয়ে যাবে। আবুধাবিতে ম্যাচ। ওখানের পিচ তো আরো ধীরগতির। ১৫০-২০০ রান করলেও আফগানিস্তান ছাড়বে না আপনাদের। আমার তো মনে হচ্ছে, ভারতের অবস্থা আরো খারাপ হবে।

Sharing is caring!

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*