বাংলাদেশ ও শ্রীলঙ্কাকে সঙ্গে নিয়ে বিশ্বকাপের আয়োজক পাকিস্তান

২০২৪ থেকে ২০৩১ সালের মধ্যে অনুষ্ঠেয় আটটি টুর্নামেন্টের তালিকা প্রকাশ করেছ ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিল (আইসিসি)। যেখানে এই ৮ বছরে ছেলেদের ক্রিকেটে দুটি ওয়ানডে বিশ্বকাপ, চারটি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ ও দুটি চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি রয়েছে।

যার মধ্যে আইসিসির ছয়টি বৈশ্বিক টুর্নামেন্ট আয়োজন করার আগ্রহ প্রকাশ করেছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)। যেখানে দুটি ওয়ানডে বিশ্বকাপও রয়েছে। যা বাংলাদেশ ও শ্রীলঙ্কার সঙ্গে যৌথভাবে আয়োজন করতে চায় তাঁরা। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন পিসিবির সভাপতি এহসান মানি।

আইসিসির নিয়ম অনুযায়ী, ওয়ানডে বিশ্বকাপ আয়োজন করতে সব ধরনের সুবিধা সম্পন্ন দশটি ভেন্যুর প্রয়োজন হয়। সেই শর্ত মেনে বাংলাদেশ ও শ্রীলঙ্কার জন্য এককভাবে বিশ্বকাপ আয়োজন করা কঠিন। একই দশা পাকিস্তানেরও।

যে কারণে এই দুই দেশের সঙ্গে আলোচনা করে যৌথভাবে বিশ্বকাপ আয়োজনের পরিকল্পনা করছে পিসিবি। সেই সঙ্গে সংযুক্ত আরব আমিরাতের সঙ্গে যৌথভাবে দুটি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ আয়োজন করতে চায় তাঁরা।এদিকে এককভাবে দুটি চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির স্বাগতিক হতে মরিয়া পাকিস্তান।

এ প্রসঙ্গে মানি বলেন, ‘আমরা আইসিসির সামনে দরপত্র দিয়েছি এবং বাংলাদেশ ও শ্রীলঙ্কার সঙ্গে সমঝোতা (যৌথ আয়োজক হতে) গঠনের প্রস্তাব দিয়েছি। একই সঙ্গে আমরা সংযুক্ত আরব আমিরাত বোর্ডের সঙ্গে সমঝোতা করতে চাই (টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ)।

এদিকে আইসিসির আটটি টুর্নামেন্ট আয়োজন করার জন্য মোট ১৭টি দেশ আগ্রহ প্রকাশ করেছে। দেশগুলো হলো, বাংলাদেশ, অস্ট্রেলিয়া, ইংল্যান্ড, ভারত, আয়ারল্যান্ড, মালয়েশিয়া, নামিবিয়া, নিউজিল্যান্ড, ওমান, পাকিস্তান, স্কটল্যান্ড, দক্ষিণ আফ্রিকা, শ্রীলঙ্কা, ওয়েস্ট ইন্ডিজ, সংযুক্ত আরব আমিরাত, যুক্তরাষ্ট্র ও জিম্বাবুয়ে।

Sharing is caring!

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*