ফিলিস্তিনে ফের ইসরায়েলি বিমান হা’ম’লা!

অবরুদ্ধ গা’জা উপ’ত্যকায় বিমান হা’ম’লা চা’লিয়েছে ই’সরায়ে’ল। স্থানীয় সময় শনিবার হামাসের স্থাপনা লক্ষ্য করে বিমান হা’ম’লা চা’লায় ইস’রায়ে’লি বাহিনী। ইস’রায়ে’লি বাহিনীর দাবি, ইস’রায়ে’লে আ’গু’নের বেলুন হা’ম’লা চালিয়েছে হামাসের সদস্যরা।

জবাবে বিমান হা’ম’লা চালানো হয়েছে। এ নিয়ে এক সপ্তাহের মধ্যে দ্বিতীয়বার গা’জায় বি’মান হা’ম’লা চালাল ইস’রায়ে’লি দখ’লদার বা’হিনী। ইস’রায়ে’লি বাহিনীর দাবি, হামা’সের অ’স্ত্র উৎপাদন কা’রখা’নায় হা’ম’লা চালানো হয়েছে।

যদিও হামাস এখন পর্যন্ত এ ব্যাপারে প্রতিক্রিয়া জানায়নি। তবে স্থানীয় গণমাধ্যমগুলোর প্রতিবেদনে বলা হচ্ছে, গা’জায় বেশ কয়েকটি স্থাপনায় বিমান হা’ম’লা চা’লিয়েছে ইস’রায়ে’ল। গা’জা’র দক্ষিণাঞ্চলের বদর এলাকায় তা’ণ্ড’ব চালি’য়েছে ই’সরায়ে’লি বাহিনী। সূত্র: মর্নিং স্টার।

আরো পড়ুন: মালয়েশিয়ার বিভিন্ন রাজ্যে শিথিল লকডাউন: স্থানীয় সময় শনিবার (০৩ জুলাই) দেশটির প্রতিরক্ষামন্ত্রী দাতুক সেরি ইসমাইল সাবরি বিন ইয়াকুব কোভিড-১৯-এর নিয়মিত ব্রিফিংয়ে এ তথ্য জানান।তিনি জানান, পারলিস, পেরাক, পাহাং কেলান্তান ও তেরেঙ্গানু রাজ্যে ক’রোনা আ’ক্রা’ন্তের সংখ্যা টানা সাতদিন ধরে ৪ হাজারের নীচে থাকায় এবং ১০ শতাংশ মানুষ দ্বিতীয় ডোজের টিকা গ্রহণ করায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

এই পাঁচটি রাজ্যে কার ওয়াশ, সেলুন (শুধুমাত্র চুল কাটার জন্য) বই, স্টেশনারি এবং কম্পিউটার বিক্রির দোকানগুলির পাশাপাশি টেলিযোগাযোগ পরিষেবাও খোলার অনুমতি দেওয়া হবে। এছাড়া কাঁচা বাজারগুলোকে সকাল ৭টা থেকে সকাল ১১টা পর্যন্ত ছয়টি পণ্য বিক্রির অনুমতি দেয়া হবে যেমন ফল, শাকসবজি, মুদি দোকান, মুরগি, মাংস প্রক্রিয়াজাত এবং সী ফুডের দোকান।

পাশাপাশি বিদ্যালয়ের শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের পরীক্ষার প্রস্তুতির জন্য ক্লাসে যোগ দেয়ার অনুমতি দেয়া হবে এবং শুধুমাত্র দম্পতিদের জন্য উল্লেখিত রাজ্যগুলোতে ভ্রমণে ছাড় দেয়া হবে। সেই সঙ্গে ব্যক্তিগত বিনোদনমূলক ক্রিয়াকলাপ, যেমন সাইক্লিং, ব্যায়াম, জগিং, তাই চি, গল্ফিং, সিঙ্গল টেনিস, হাইকিং, মাছ ধরা, মোটরিং এবং স্কেটবোর্ডিংয়ের অনুমতি দেওয়া হয়।

উৎপাদন খাত সমূহে যেমন মোটরযান, সিরামিক, রপ্তানির আসবাবপত্র কারখানা, রাবার, লোহা, ইস্পাত এবং সিমেন্ট কারখানার অত্যাবশ্যকীয় পরিষেবার জন্য ৮০ শতাংশ শ্রমিক কাজে যোগদান করতে পারবে।

এদিকে, দেশটিতে শনিবার দুপুর পর্যন্ত পূর্ববর্তী ২৪ ঘণ্টায় করো’নায় আ’ক্রা’ন্ত হয়েছেন ৬ হাজার ৬৫৮ জন এবং মৃ’ত্যু হ’য়েছে ১০৭ জনের। সব মিলিয়ে আ’ক্রা’ন্তের সংখ্যা ৭ লাখ ৭২ হাজার ৬০৭ জন। এখন পর্যন্ত দেশটিতে করো’নায় মা’রা গেছেন ৫ হাজার ৪৩৪ জন এবং সুস্থ হয়ে বাসায় ফিরেছেন ৭ লাখ ২১৫ জন।

Sharing is caring!

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*