পাকিস্তানের ক্রিকেটে উন্নতি হবে না: মিসবাহ

ভারত-পাকিস্তান মহারণের আগে বোমা ফাটালেন মিসবাহ-উল-হক। বিশ্বকাপের কয়েকদিন আগে পাকিস্তান কোচের দায়িত্ব ছেড়েছেন মিসবাহ। সাবেক কোচের দাবি, পাকিস্তান ক্রিকেটে সংস্কৃতি এবং বলির পাঁঠা খোঁজার নীতি না বদলালে সাফল্য পাওয়া অসম্ভব। ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরের পর হঠাৎ কোচের পদ থেকে পদত্যাগ করেন মিসবাহ। যদিও তার কারণ জানাননি তিনি। পদত্যাগের পর এই প্রথম মুখ খুললেন পাকিস্তানের সাবেক এই কোচ। মিসবার দাবি, পাকিস্তান বোর্ডের দূরদৃষ্টি নেই। শুধু সাময়িক ফলাফল নিয়েই ভাবা হয়।

এই প্রসঙ্গে মিসবাহ বলেন, `আমাদের শুধু ফলাফলের দিকে নজর দেওয়া হয়। এটাই আমাদের ক্রিকেটের সবচেয়ে বড় সমস্যা। ভবিষ্যতের কথা ভাবা হয় না। গ্রাসরুটে নজর দিতে হবে। এরপর ঘরোয়া স্তরে উন্নতি করতে হবে। সাপ্লাই লাইন বাড়াতে হবে। সেখান থেকে জাতীয় দলে ক্রিকেটার নিতে হবে। কিন্তু আমরা শুধু রেজাল্ট চাই। ফল না পেলেই কাউকে বলির পাঁঠা বানানো হয়। পাকিস্তান ক্রিকেটে বহুদিন ধরে এই ট্রেন্ড চলে আসছে। বলির পাঁঠা বানানোর এই সংস্কৃতি যতদিন না বন্ধ হবে, পাকিস্তান ক্রিকেটে উন্নতি হবে না।`

মিসবাহ মনে করেন, কোচ এবং অধিনায়ক বদলে সাফল্য আসবে না। বিশ্বকাপের দল নির্বাচন নিয়ে নির্বাচকদের একহাত নেন সাবেক এই পাকিস্তানের কোচ। মিসবাহ বলেন, `নির্বাচকরা নিজেরাই জানে না কী চায়। কখনও বিশ্বকাপের দলে নতুনদের নেওয়া হচ্ছে। আবার কখনও বাদ দেওয়া ক্রিকেটারদের ১০ দিন পরে ডেকে নেওয়া হচ্ছে। এইভাবে চলে নাকি?` পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের ওপর তিনি কতটা ক্ষুব্ধ সেটা এই কথাগুলো থেকেই পরিষ্কার। রবিবারের ম্যাচে পাল্লা ভারী ভারতের, দাবি মিসবাহ উল হকের।

Sharing is caring!

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*