নেশার টাকা না পেয়ে মাকে খুন !

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বাঞ্ছারামপুরে নেশার টাকা না পেয়ে মাকে খুন করেছেন মাদকাসক্ত মেয়ে পাপিয়া। নি’হ’ত ওই মায়ের নাম রহিমা বেগম (৫৫)। রোববার সকাল ১১টায় বাঞ্ছারামপুর উপজেলার আইয়ুবপুর ইউনিয়নের দশানী গ্রামে এই ঘটনা ঘটে।

নি’হ’ত রহিমা বেগমের ছোট মেয়ে পপি আক্তার বলেন, ‘সকালে আমার মা কাপড় সেলাই করছিলেন। তখন আমার বড় বোন পাপিয়া এসে টাকা চান, নেশা করবে বুঝতে পেরে মা টাকা না দিলে পাপিয়া কাপড় কাটার কাচি দিয়ে মা’র পেটে ঢুকিয়ে দেন। এতে আমার মায়ের মৃ’ত্যু হয়।

পপি আক্তার আরো জানান, পাপিয়া দীর্ঘ দিন ধরেই মাদক সেবন করে আসছেন। তিনি প্রায় সময় টাকার জন্য পরিবারের সকলকে বিভিন্নভাবে বিরক্ত করতেন। এর আগেও একবার মাকে খুন করার চেষ্টা করেছিলেন পাপিয়া।

আইয়ুবপুর ইউনিয়ন পরিষদের মেম্বার মো: সবুজ বলেন, তারা মা ও মেয়েরা মিলে একসাথে মাদক সেবন করতো। তাদের সংস্পর্ষে এলাকায় অনেক নারী-পুরুষ মাদক সেবনে আসক্ত হয়ে পড়েছিল।

এ ব্যাপারে বাঞ্ছারাপুর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মো: রাজু আহমেদ জানান, ঘাতক মেয়ে পাপিয়াকে গ্রেফতার করা হয়েছে এবং নি’হ’ত মায়ের লাশ ময়নাতদন্তের জন্য ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

Sharing is caring!

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*