নেতৃত্ব থেকে আব্বাসকে অপসারণের দাবি ফিলিস্তিনিদের

ফিলিস্তিন, মাহমুদ আব্বাস, Palestine, Mahmoud Abbas, www.dailynayadiganta.com

পশ্চিম ও পূর্বের সকলেই ফিলিস্তিনি জনগণের গণতান্ত্রিক পরিবেশে বসবাসের অধিকারের পক্ষে ধারাবাহিকভাবেই বলে আসছেন। ফিলিস্তিনি জনসংখ্যার ৬০ ভাগের বেশি তরুণ।

তাদেরও অধিকার রয়েছে নীতি নির্ধারণে অক্ষমতা ও রাজনৈতিকভাবে কম সচেতন বয়স্কদের সরিয়ে তরুণ নেতৃত্বকে ক্ষমতায় আনার। সমসাময়িক ঘটনাপ্রবাহে বর্তমান নেতৃত্বের প্রভাব প্রতিরোধ আন্দোলনগুলোর তুলনায় নিতান্তই কম।

ফিলিস্তিনি জনগণ বিরক্ত। এক বয়োবৃদ্ধ প্রেসিডেন্টের সিদ্ধান্তের কাছে তাদের সক্ষমতাকে আবদ্ধ রাখতে প্রত্যাখ্যান করেছেন তারা। যেই প্রেসিডেন্ট ফিলিস্তিনিদের ভূমি একের পর এক দখলের মুখে ধারাবাহিকভাবে ইসরাইলি দখলদার কর্তৃপক্ষের সাথে সহযোগিতার করে যাচ্ছেন।

সাফল্যের মিথ্যা দাবির মুখে চুপ থাকতে অস্বীকার করছে জনগণ। ইহুদি বসতি স্থাপনকারীদের হাতে নিজেদের স্বদেশ চুরি হতে দেখে তারা চুপ থাকবে না।

পরিবর্তনের আকাঙ্ক্ষায় জনগণ ধৈর্য ধারণ করে এসেছে। এখন সময় হয়েছে তাদের হাতে থাকা সাংস্কৃতিক, শিক্ষাগত, রাজনৈতিক, সাংগঠনিক, জনপ্রিয়গত, প্রতিষ্ঠানগত ও পরিবারিক উপকরণের মাধ্যমে পরিবর্তনের জন্য পদক্ষেপ নেয়ার।

প্যালেস্টাইন লিবারেশন অর্গানাইজেশন (পিএলও), ফাতাহ এবং বিশেষভাবে ফিলিস্তিনি কর্তৃপক্ষসহ (পিএ) সবধরনের নেতৃত্বের আসন থেকে মাহমুদ আব্বাসের অপসারণের ডাক দেয়া হচ্ছে।

স্বাধীনতার পথে নেতৃত্বের বাছাই করে নিতে, দখলদারিত্বের অবসানে এবং ফিলিস্তিনের ইতিহাস, প্রতিরোধ সংগ্রাম, জনগণ, ভবিষ্যৎ ও নিয়তির সাথে বিশ্বাসঘাতকতা করা দালালদের অপসারনে জনগণের সিদ্ধান্তের সুযোগ দেয়া আবশ্যিক।

Sharing is caring!

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*