দুই সন্তানের বেশি নিলে মিলবে না সরকারি চাকরি

ভারতে যোগী আদিত্যনাথের নেতৃত্বাধীন উত্তরপ্রদেশ রাজ্যের খসড়া জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণ নীতি নিয়ে বিতর্ক শুরু হয়েছে। এই নীতিতে প্রস্তাব করা হয়েছে, দুইয়ের বেশি সন্তান নিলে স্থানীয় নির্বাচনে প্রার্থী হওয়া যাবে না, সরকারি চাকরিতে আবেদন বা পদোন্নতি পাওয়া যাবে না এবং পাওয়া যাবে না সরকারি কোনও ভর্তুকি।

খবর এনডিটিভির উত্তরপ্রদেশের রাজ্য আইন কমিশন (ইউপিএসএলসি) বলেছে, এসব বিধি-বিধান উত্তরপ্রদেশ জনসংখ্যা (নিয়ন্ত্রণ, স্থিতিশীলতা ও কল্যাণ) বিল- ২০২১ এর খসড়ার অংশ। ইউপিএসএলসি ওয়েবসাইটে বলা হয়েছে, রাজ্যের আইন কমিশন উত্তরপ্রদেশে জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণ,

স্থিতিশীল রাখার জন্য কাজ করছে। এ জন্য একটি বিলের খসড়া প্রস্তুত করেছে। এই বিলের বিষয়ে জনগণের পরামর্শ চেয়েছে ইউপিএসএলসি। আগামী ১ জুলাইয়ের মধ্যে তা ইউপিএসএলসির কাছে পাঠাতে বলা হয়েছে। যৌক্তিক পরামর্শ বিলের খসড়ায় ঠাঁই পেতে পারে।

খসড়া ওই বিলে বলা হয়েছে, দুই সন্তান নেয়া সরকারি কর্মকর্তা এবং কর্মচারীদের জন্য বিশেষ প্রণোদনার ব্যবস্থা থাকবে। যেসব সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারী দ্বি-সন্তান নীতি গ্রহণ করবেন তারা চাকরির মেয়াদকালে দুটি অতিরিক্ত বোনাস, এক মাসের পুরো বেতনসহ মাতৃত্বকালীন-পিতৃত্বকালীন ছুটি

এবং অন্যান্য সুযোগ-সুবিধা পাবেন। আইনটি বাস্তবায়নের জন্য একটি রাজ্য জনসংখ্যা তহবিল গঠন করা হবে। সরকারের দায়িত্বের বিষয়ে খসড়া বিলে বলা হয়েছে, রাজ্যের সব প্রাথমিক স্বাস্থ্যসেবা কেন্দ্রে প্রসূতি বিভাগ চালু করা হবে। একই সঙ্গে জন্মনিয়ন্ত্রণ বিষয়ে জনসচেতনতা তৈরির জন্য কমিউনিটি স্বাস্থ্যসেবা কর্মীদের মাধ্যমে জন্মনিরোধক পিল এবং কনডমও বিতরণ করা হবে।

Sharing is caring!

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*