ঈদে শ্রমিকদের ছুটি ও বেতন-বোনাসের সময় নির্ধারণ!

পোশাক শিল্পসহ সব কারখানা শ্রমিকদের ছুটি তিন দিন ও তাদের বেতন-বোনাস আগামী সোমবারের (১৯ জুলাই) মধ্যে পরিশোধ করতে হবে বলে জানিয়েছেন শ্রম ও কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী বেগম মন্নুজান সুফিয়ান। মঙ্গলবার (১৩ জুলাই) বিকালে রাজধানীর শ্রম ভবনের সভাকক্ষ আরএমজি বিষয়ক পরামর্শক পরিষদের ১০ম সভায় তিনি এ কথা জানান।

বেগম মন্নুজান সুফিয়ান বলেছেন, সরকারি নিয়ম অনুসারে তৈরি পোশাকসহ সব কারখানা শ্রমিকের ঈদের ছুটি তিন দিনই থাকবে। কারখানা শ্রমিকদের বেতন ও বোনাস আগামী সোমবারের (১৯ জুলাই) মধ্যে পরিশোধ করতে হবে।
তিনি বলেন, ঈদের ছুটি তিন দিনই থাকবে। এ ক্ষেত্রে কারখানা মালিকরা ইচ্ছা করলে আরও বেশি দিন ছুটি দিতে পারেন।

এটা মালিক ও শ্রমিকদের ব্যাপার। তবে ঈদের ছুটির আগের দিন অর্থাৎ ১৯ জুলাইয়ের মধ্যে শ্রমিকদের বেতন ও বোনাস পরিশোধ করতে হবে। বেতন-বোনাস পরিশোধে ব্যর্থ হলে আইনের আশ্রয় নেওয়া হবে। প্রতিমন্ত্রী বলেন, এর আগে মন্ত্রণালয় নিজ উদ্যোগে শ্রমিকদের বেতন-বোনাস আদায় করেছে। ইতোমধ্যে বেতন দেওয়া শুরু হয়েছে।

অধিকাংশ কারখানাই শ্রমিকদের বেতন দিয়েছে। কিছু কারখানা বাকি আছে। তারা একই সঙ্গে বেতন-বোনাস দেওয়ার প্রস্তুতি নিচ্ছে। সব কারখানাকে ছুটির আগেই শ্রমিকের বোনাস পরিশোধ করতে হবে। এ ক্ষেত্রে সর্বোচ্চ ১৯ জুলাইয়ের মধ্যে বোনাস পরিশোধ করেই কারখানা ছুটি দেবেন মালিকপক্ষ।

ঈদের পর কারখানা ছুটির বিষয়ে প্রশ্ন করা হলে প্রতিমন্ত্রী বলেন, এবারের করোনা আক্রান্তের সংখ্যা আগের চেয়ে ভয়াবহ। আগে মৃত্যু ও আক্রান্ত কম ছিল, এবার তা ভয়াবহ আকার নিয়েছে। এ অবস্থায় ঈদে কারখানার শ্রমিকরা বাড়িতে যাবেন বলে মনে হচ্ছে না।

সভায় উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশনের সভাপতি শাহজাহান খান, তৈরি পোশাক মালিকদের সংগঠন বিজিএমইএর সিনিয়র সহসভাপতি নাসির উদ্দিন ও পরিচালক হারুন উর রশিদ, বিকেএমইএর প্রথম সহসভাপতি মোহাম্মদ হাতেম, শ্রমিক নেতা সিরাজুল ইসলাম রনি, কামরুল হাসান ও নাজমা আকতার।

Sharing is caring!

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*