ইসরায়েলের অভিযোগের কড়া জবাব দিল ইরান!

ইস’রায়ে’লের প্রধানমন্ত্রী নাফতালি বেনেট বলেছেন, ওমানে তেল ট্যা’ঙ্কারে ইরান ‘নিশ্চিত’ হা’ম’লা করেছে। এ অভিযোগে তেহরান বলছে, অ’ভিযোগ পুরোপুরি ভিত্তিহীন। এ নিয়ে ইরান ও ইস’রায়ে’লের মধ্যে চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে। খবর বিবিসির। বৃহস্পতিবার (২৯ জুলাই) আরব সাগরে ওমান উপকূলে তেলবাহী ইস’রায়েলি জা’হাজে হা’ম’লায় দুই না’বিক নি’হ’ত হয়ে’ছেন। এদের মধ্যে একজন যুক্তরাজ্যের ও অপর জন রোমানিয়ার নাগরিক।

ওমানের রাজধানী মাসকট থেকে তিনশ’ কি’লোমিটার উত্তর পূর্ব উপকূলের মাসিরাহ দ্বীপে লাইবে’রিয়ার পতাকাবাহী মার্সার স্ট্রিট নামের তেলের ট্যা’ঙ্কা’রে এ হা’ম’লা হয়। ইসরা’য়ে’লি প্রধানমন্ত্রী সতর্ক করে বলেছেন, আমরা জানি কীভাবে ইরানকে জবাব দিতে হয়। পাল্টা উত্তরে তেহরান বলছে, স্বার্থ রক্ষায় ইরান কোনো দ্বিধা করবে না।

সম্প্রতি ইরান ও ইস’রায়ে’লের জাহাজে কয়েকটি হা’ম’লার ঘ’টনা ঘটেছে। গত মার্চ থেকে শুরু হওয়া এসব ঘটনা ‘পাল্টাপাল্টি হা’ম’লা’ হিসেবে দেখা হচ্ছে। বিবিসির নিরাপত্তা বিষয়ক প্রতিনিধি ফ্রাঙ্ক গার্ডনার বলছেন, দুপক্ষের মধ্যে অঘো’ষিত যু’দ্ধ চলছে এবং তারা পা’ল্টা আ’ক্র’মণের বিষ’য়টিও অস্বীকার করছে। যার কারণে পরি’স্থিতি উত্তপ্ত হয়ে উঠছে। তবে মার্সার স্ট্রিটে হ’তা’হ’তে’র সংখ্যা উল্লে’খযোগ্যভাবে বৃদ্ধি পেয়েছে; যা আ’শ’ঙ্কাজনক।

এছাড়া ইরা’নের বিরুদ্ধে ইস’রায়ে’লের পর’মাণু কে’ন্দ্র ও বিজ্ঞা’নীদের ওপর হা’ম’লারও অ’ভিযোগ রয়েছে। পশ্চিমাদেশগুলো ইরানকে পার’মাণবি’ক বো’মা বানা’নোর অভিযোগে অভিযুক্ত করেছে। তবে ইরান জানিয়েছে তারা পার’মাণ’বিক কর্মসূচি জোরদার করার জন্য গবেষণা ও বিদ্যুৎ উৎপাদনে জোর দিয়েছে।

Sharing is caring!

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*