ইউক্রেনে যোদ্ধা পাঠানো নিয়ে যা জানাল হিজবুল্লাহ

ইউক্রেনে রুশ বাহিনীর সহায়তায় যোদ্ধা পাঠানোর খবর প্রত্যাখান করেছে ইরান সমর্থিত লেবাননের সশস্ত্রগোষ্ঠী হিজবুল্লাহ। শুক্রবার শিয়াপন্থী এ গোষ্ঠীটির প্রধান হাসান নাসরুল্লাহ টেলিভিশনে দেওয়া ভাষণে এ কথা জানান। সম্প্রতি কিয়েভ দাবি করে, ইউক্রেনে রাশিয়ার পক্ষে যুদ্ধের জন্য সিরিয়া এবং হিজবুল্লাহ থেকে কমপক্ষে এক হাজার যোদ্ধা নিয়োগ দিয়েছে মস্কো।

এর পরিপ্রেক্ষিতে এ বিষয়ে মুখ খুললেন হিজবুল্লাহ প্রধান। হাসান নাসারুল্লাহ বলেন, যে সব খবর ছড়িয়েছে তা আমি স্পষ্টভাবে প্রত্যাখান করছি। এই দাবিগুলো মিথ্যা, সত্য নয়। হিজবুল্লাহর কোনও যোদ্ধা বা বিশেষজ্ঞ যুদ্ধক্ষেত্রে যাচ্ছে না বলে স্পষ্ট জানিয়ে দেন তিনি।

এদিকে ইউক্রেনে হাইপারসনিক ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালানো হয়েছে বলে জানিয়েছে রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়। প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ইগর কোনাশেনকভ শনিবার এই তথ্য জানান। রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ইগর কোনাশেনকভ বলেন,

মস্কো হাইপারসনিক ক্ষেপণাস্ত্র হামলার মাধ্যমে পশ্চিম ইউক্রেনের একটি ভূগর্ভস্থ গুদাম ধ্বংস করে দিয়েছে। ওই গুদামে ক্ষেপণাস্ত্র এবং ‘ইউক্রেনের সেনাদের বিমানের গোলাবারুদ’ ছিল বলে তিনি তিনি দাবি করেন। এর আগে রাশিয়া কখনও যুদ্ধক্ষেত্রে হাইপারসনিক ক্ষেপণাস্ত্র ব্যবহারের কথা স্বীকার করেনি।

Sharing is caring!

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*